হোম
শব্দকোষ
অনুমতিবিহীন ব্লকচেইন

অনুমতিবিহীন ব্লকচেইন

অনুমতিবিহীন ব্লকচেইন হলো এমন উন্মুক্ত নেটওয়ার্ক যা সমর্থন, অনুমতি বা অনুমোদনের প্রয়োজন ছাড়াই যেকাউকে ঐকমত্য প্রক্রিয়ায় অংশগ্রহণ করতে দেয়।

নিম্নলিখিতগুলো অনুমতিবিহীন ব্লকচেইনের মূল বৈশিষ্ট্য কিন্তু এগুলোর মধ্যেই সীমাবদ্ধ নয়:

  • লেনদেনের স্বচ্ছতা

  • বেনামী

  • কেন্দ্রীয় কর্তৃপক্ষের অনুপস্থিতি

  • ওপেন সোর্স কোড

অনুমতিহীন ব্লকচেইনের কিছু উদাহরণের মধ্যে রয়েছে বিটকয়েন (BTC), ইথেরিয়াম (ETH), এবং BNB স্মার্ট চেইন (BNB)। ইন্টারনেট সংযোগ থাকা যেকোনো ব্যবহারকারীর নেটওয়ার্কে যোগদান করার, লেনদেন প্রেরণ ও গ্রহণ করার, কোড দেখার এবং অবদান রাখার, একটি নোড পরিচালনা করার ও কনসেনশাস প্রক্রিয়ায় অংশগ্রহণ করার ক্ষমতা রয়েছে।
অন্যদিকে, অনুমোদিত ব্লকচেইনগুলো সাধারণত একটি কেন্দ্রীভূত প্রতিষ্ঠান দ্বারা নিয়ন্ত্রিত হয়। সাধারণত প্রাইভেট ব্লকচেইন নামে পরিচিত এই ধরনের নেটওয়ার্কের সীমাবদ্ধতা আছে কে লেনদেন যাচাই করতে পারবে এবং তাদের বিতরণ করা লেজারে রেকর্ড করা তথ্যের সাথে ইন্টারঅ্যাক্ট করতে পারবে। প্রাইভেট ব্লকচেইনগুলো সাধারণত ব্লকচেইন প্রযুক্তি ব্যবহার করতে চায় আবার নিয়ন্ত্রক বা প্রতিযোগিতামূলক কারণে নির্দিষ্ট তথ্য যাতে গোপনীয় থাকে তা নিশ্চিত করতে চায় এমন এন্টারপ্রাইজগুলো ব্যবহার করে।
অনুমতিবিহীন ব্লকচেইনগুলো সাধারণত অধিক সুরক্ষিত হয় কারণ নেটওয়ার্কের মধ্যে ক্ষতিকর ব্যক্তিদের চক্রান্তের সম্ভাবনা কমে যায়। তবে, স্কেলেবিলিটি সমস্যার কারণে অনুমতিবিহীন ব্লকচেইনগুলো তুলনামূলকভাবে ধীর হতে পারে। একটি নির্দিষ্ট সময়ে এগুলো শুধুমাত্র সীমিত সংখ্যক লেনদেন অথেন্টিকেট করতে পারে।
সংক্ষেপে, অনুমতিবিহীন ব্লকচেইনগুলো বিকেন্দ্রীকরণের সুবিধা দেয় এবং এটি সকলের জন্য উন্মুক্ত, আর অনুমোদিত মডেলগুলো অধিক কেন্দ্রীভূত এবং সীমাবদ্ধতাযুক্ত। বিকেন্দ্রীকরণের ফলে গতি এবং স্কেলেবিলিটি সংশ্লিষ্ট সমস্যা হওয়ায় এই পদ্ধতিতে কিছুটা ত্যাগ করতেই হয়।